শুক্র যখন উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে

Astrology Website

শুক্র যখন উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে

—————–শুক্র যখন উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে————–

———————–ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি———————

একটু অন্য ভাবে আলোচনা করি এই শুক্র যখন পীড়িত হয় তাহলে কেমন ঘটনা ঘটতে পারে?
সাধারণ আলোচনায় বলা যায় মানুষের জীবনে সুখের বিনাশ, এগুলো নতুন কিছু নয় সবাই জানেন বা শুনেছেন, তবে আমি একটু আলাদা রকম ভাবে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো আজকে।

মানুষ এতটাই ব্যস্ত আজকের জীবনে তারা এস্ট্রলজি নিয়ে মাথা ঘামালেও ভুলে যায় যে তাদের জীবন ছাড়াও পৃথিবীর সব কিছুতেই এস্ট্রলজি প্রভাব ফেলেছে।

অনেক বার ইতিহাস পুনরাবৃত্তি হয় সাধারণ জ্ঞান, বিশ্বের ইতিহাস ক্লাসে উদ্ধৃত। জমি নিয়ে অনেক যুদ্ধ, প্রতিশোধের জন্য খুন, এবং অসহায় নেতাদের হত্যার ঘটনা ঘটেছে, আবার একটা মানুষের মতন দেখতে ডুপ্লিকেট অন্য দেশে মানুষ খুঁজে পাওয়া গেছে কিন্তু অনেক ঐতিহাসিক ঘটনা আছে যা আমরা বুঝতে পারছি না অতীতের পুনরাবৃত্তি।

তাই যখন ইতিহাস নিজেই পুনর্বিবেচনা করা হয় সাধারণত আলোচনা করা উদাহরণের বাইরে? ঐতিহাসিক পুনরাবৃত্তি আমরা আমাদের ইতিহাস পাঠ থেকে অনুপস্থিত হয়? এখানে দশবার ইতিহাস নিজেই পুনরাবৃত্তি হয় এবং কেউ তা উপলব্ধি করেনি।

15 ই এপ্রিল, 1912 তারিখে, রাত 11:40pm মিনিটে আরএমএস টাইটানিক একটি বরফের মধ্যে ক্র্যাশ করার কয়েক ঘন্টা পর ডুবে যায়। ঘটনার সময়ের কুষ্টি বানালে দেখা যাচ্ছে শুক্রের অবস্থান উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে এবং রাহুর সাথে সহাবস্থান এবং শনি নীচস্ত অবস্থায় মেষ রাশিতে। শুক্র তার সুখ স্থানে অবস্থান করলেও রাহু আর শনির ঘেরা অবস্থায় অবস্থান করছিল এবং শনির নক্ষত্রে অবস্থিত ছিলো। ঘটনা সম্পর্কে মৌলিক তথ্য সুপরিচিত: যথেষ্ট লাইফবোট ছিল না, জাহাজটি সমুদ্রের মধ্যে ডুবে যাওয়ার মতো দুটি ভাগে বিভক্ত ছিল এবং অবশিষ্টাংশকে আরএমএস কার্পপিয়া দ্বারা উদ্ধার করা হয়েছিল। 1500 এরও বেশি মানুষ তাদের প্রাণ হারিয়েছে। এটি 100 বছরেরও বেশি সময় আগে একটি গল্প, কিন্তু সমাজ এখনও এটির দ্বারা মুগ্ধ। প্রতিলিপি তৈরি করা হয়েছে, জাদুঘর গ্যালারিতে আর্টিফ্যাক্টস প্রদর্শিত হয়েছে, এবং জেমস ক্যামেরনের কুখ্যাত ঘড়ি সম্পর্কে তার ছবির কুখ্যাত দৃশ্যটি এখনও সোশ্যাল মিডিয়াতে বিতর্কিত।

শুক্র যখন উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে অবস্থান করে কোনো জাত চক্রে তার পারিবারিক সুখের হানি ঘটবেই তার সাথে ভালোবাসার বিসর্জনের অনেক ঘটনা প্রত্যক্ষ দেখা গেছে। একমাত্র টাইটানিকের ঘটনা দিয়ে এই বিবরণ সম্পূর্ণ হয়না।

টাইটানিক আটলান্টিক মহাসাগরে ডোবার 90 বছর আগে ঠিক একইভাবে , দক্ষিণ চীন সাগরের তেক সিংয়ের ডুবন্ত হয়েছিল। টেক সিংওয়াস চীন থেকে জাকার্তা পর্যন্ত পালতোলা এবং বহুমূল্য পণ্যসম্ভার দিয়ে লোড করা হয়েছিল: চীনামাটির বাসন, সিল্ক, মসলা এবং ওষুধ এটি 1,600 অভিবাসীকেও বহন করে অন্যত্র আরও ভাল জীবনযাপন করার আশা করেছিল। 6 ই ফেব্রুয়ারী, 1822 তারিখে, দুপুরে 13 :26pm টেক সিং একটি ক্ষুদ্র বাধা পেয়ে বিধ্বস্ত হয়ে পড়ে, যার ফলে জীবনের ব্যাপক ক্ষতি হয়।

ঠিক ওই দিনে শুক্রের অবস্থান উত্তরভদ্রপদ নক্ষত্রে অবস্থা করছিলো এবং আগের মতোই শনি নীচস্ত মেষ রাশিতে আর রাহু দ্বারা পীড়িত। 1600 জন মানুষ নতুন জীবনের আশায় চলেছিল দূরে কোথাও তাদের সংসার করার মানসিকতায় কিন্তু সেটা আর হয়ে উঠলো না।

maritime disaster এর ঘটনা গুলো দেখতে পাবেন, একটা দুটো ঘটনায় সীমাবদ্ধতা নেই, এমন অনেক উদাহরণ খুঁজে পাওয়া যাবে যেখানে নতুন জীবনের সন্ধানে মানুষ ঘর বাঁধতে চেষ্টা করেছিলেন সেটা জাহাজে করে কোথাও গিয়ে অথবা বিবাহ করে সংসার পালন, শুক্র পীড়িত হলে জাহাজ বা সংসার মাঝ পথেই ভেঙে পড়তে হয়েছে।

1, Dona paz 1987 philipins
2, kiangya 1948 chaina
3, mont blance 1917 canada
4, Taiping 1949 chaina
5, Salem express 1991 Egypt
6, Toya Maru 1954 Japan
7, RMS Express 1914 canada
8, General slocum 1904 U.S.A
9, kiche maru 1912 japan
10, Hong Moh 1912 Singapore

এইসব জাহাজ ডুবি ঘটনায় শুক্রকে কোনো না কোনো ভাবে পীড়িত হতে হয়েছে। আজকে আমি শুধু জাহাজ নিয়ে লিখলাম ইতিহাসের পুনরুবৃত্তি বিষয়ে, আমার কিছু রিসার্চ চলছে জন্মের পুনরুবৃত্তি নিয়ে, সেগুলো নিয়ে লিখবো একদিন।

সম্রাট বোস
7890023700

 


 

Leave a Reply